ইনশাআল্লাহ অর্থ কি

ইনশাআল্লাহ অর্থ কি
ইনশাআল্লাহ অর্থ কি

ইনশাআল্লাহ অর্থ কি?  ইনশা’আল্লাহ (InshaAllah) একটি আরবি বাক্য। আরবি ভাষার বলা হয় ইনশা’আল্লাহ। ইনশাআল্লাহ বলা  হয় যখন কোন কাজ করার ইচ্ছা প্রকাশ করা হয় তখন। ইনশাআল্লাহ এর বাংলা অর্থ হলো “আল্লাহ যদি চান”। ইনশাআল্লাহর অর্থ কি? আসলে ইনশাআল্লাহ বাক্যটি আরবি। ইনশা’আল্লাহ শব্দের অর্থ যদি আল্লাহ চান” বা “আল্লাহর ইচ্ছাগত”।

ইনশাআল্লাহ বাক্যাংশটি সাধারণত মুসলিম এবং আরবের খ্রিস্টান এবং অন্যান্য ধর্মের আরব লোকেরা ব্যবহার করে থাকেন। ইনশাআল্লাহ বলতে বোঝায় ভবিষ্যতে ঘটবে বলে আশা রাখেন এমন ঘটনার ক্ষেত্রে ইনশাআল্লাহ উল্লেখ করেন।

ইনশাআল্লাহ তিনটি আরবি শব্দ মিলে গঠিত এবং এটির বাংলা অর্থ করলে হয় তিনটি বাংলা অর্থ । যার আরবি হলো إِنْ شَاءَ ٱللَّٰهُ
ইন অর্থ যদি, শা অর্থ চাওয়া, আর আল্লাহ ত আল্লাই। সুতরাং ইনশাআল্লাহ অর্থ দাঁড়ায় – যদি আল্লাহ চান।

ইনশাআল্লাহ ব্যবহার করা যায় না

চুরি করা, ডাকাতি করা, ব্যভিচার, দুর্নীতি, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডসহ, অবৈধ কোনো কাজ করার ব্যাপারে ‘ইনশাআল্লাহ’ জায়েজ নেই। যাবতীয় অপরাধ ও অনৈতিক কাজে ‘ইনশাআল্লাহ’ বলা সম্পূর্ণ হারাম।

কেন ইনশাআল্লাহ বলতে হয়?

ইনশাআল্লাহ বলবেন কেন? আমরা যদি ভবিষ্যতে কিছু করতে চাই তাহলে ইনশাআল্লাহ বলব। আল্লাহর ইচ্ছা ছাড়া আমরা কিছুই করতে পারি না। তাই আমরা আল্লাহর কাছে সাহায্য চাই। আল্লাহ যদি চান। আমাদের এখানে কোনো ক্ষমতা নেই।

ইনশাআল্লাহ না বলার ক্ষতি

ইনশাআল্লাহ অনেক গুরুত্বপূর্ণ। ইনশাআল্লাহ ভবিষ্যতে কোন কাজ করার ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়। যদি ইনশাআল্লাহ না বলি তাহলে আমাদের কাজ অসম্পূর্ণ থেকে যাবে। নিচের ঘটনাগুলো থেকে এমনটিই জানা যায়।

ইনশাআল্লাহর গুরুর ও ফজিলত।

উপরোক্ত ঘটনা থেকে বোঝা যায় ইনশাআল্লাহ এর অনেক ফজিলত ও গুরুত্ব রয়েছে। ইনশাআল্লাহ, না বললে এক ধরনের অহংকার ও অহংকার দেখায়। যা কখনো বান্দার জন্য কাম্য নয়। বান্দা আল্লাহর কাছে নমনীয় হবে। তার কাজ এমন হওয়া উচিত যাতে আল্লাহর প্রতি তার বিশ্বাস ও ভালোবাসা প্রকাশ পায়।