দেশে ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৬ হাজার ছাড়াল

দেশে ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৬ হাজার ছাড়াল

চলতি বছর (৩০ সেপ্টেম্বর) এ পর্যন্ত হাসপাতালে ভর্তি ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ১৬ হাজার ছাড়িয়েছে। গত বছর দেশে ২৮ হাজার ৪২৫ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হন।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২৪০ জন। কিন্তু আর কেউ মারা যায়নি।

শুক্রবার (৩০ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের নিয়মিত ডেঙ্গু রিপোর্টে সারাদেশের পরিস্থিতি সম্পর্কে জানানো হয়েছে।

বলা হচ্ছে, একদিনে নতুন 240 জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীর মধ্যে 150 জন ঢাকার বাসিন্দা। ঢাকার বাইরে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৯০ জন। দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে মোট ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ১৯১৬ জনে দাঁড়িয়েছে। এর মধ্যে ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন ১ হাজার ৪৪৮ জন। আর ঢাকার বাইরের হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন ৪৬৮ জন।

চলতি বছরের ১ জানুয়ারি থেকে আজ (৩০ সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ১৬ হাজার ৯২ জন। এর মধ্যে ১৪ হাজার ১২০ জন সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন।

এদিকে, দেশে ডেঙ্গুতে এ পর্যন্ত মোট ৫৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। গত ৬ সেপ্টেম্বর ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয় ৫ জনের। চলতি বছরে একদিনে এটাই সর্বোচ্চ মৃত্যুর সংখ্যা।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে সারা দেশে ডেঙ্গু শনাক্ত হয় ৬ হাজার ৬০ জন। এর মধ্যে ঢাকায় ৬ হাজার ২৩ জন, ঢাকার বাইরে ৩৭ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। ২০১৭ সালে সারাদেশে ২ হাজার ৮৮৫ জনের ডেঙ্গু শনাক্ত হয়। এর মধ্যে ঢাকায় ২ হাজার ৭৬৯ জন, ঢাকার বাইরে ১১৬ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। 2018 সালে সারাদেশে 10 হাজার 162 জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকায় ১০ হাজার ১৪৮ জন, ঢাকার বাইরে ১৪ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে।

এরপর ২০১৯ সালে সারাদেশে ১ লাখ ১ হাজার ৩৫৪ জনের ডেঙ্গু শনাক্ত হয়। এর মধ্যে ঢাকায় ৫১ হাজার ৮১০ জন, ঢাকার বাইরে ৪৯ হাজার ৫৪৪ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। 2020 সালে, সংক্রমণ আবার হ্রাস পেয়েছে। সারাদেশে এক হাজার ৪০৫ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকায় ১ হাজার ২২৪ জন, ঢাকার বাইরে ১৮১ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে।

2021 সালে, ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব আবার বেড়েছে। এ বছর সারাদেশে ২৮ হাজার ৪২৫ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকায় ২৩ হাজার ৬১৩ জন, ঢাকার বাইরে ৪ হাজার ৮১২ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে।